আজ : মঙ্গলবার, ২রা শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১৭ই জুলাই, ২০১৮ ইং, ২রা জিলক্বদ, ১৪৩৯ হিজরী, রাত ১২:২৭,

কচুয়া বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজের অধ্যাপক শেখ কামরুল হাসান আর নেই॥

মোঃ মেহেদী হাসান, কচুয়া॥
কচুয়া বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজের ভূগোল বিভাগের সহকারী অধ্যাপক শেখ কামরুল হাসান আল মাহমুদ (৫৩) আর বেঁচে নেই (ইন্নালিল্লাহি…..রাজিউন)। তিনি ১৯ফেব্রুয়ারি সোমবার সকাল ১১টার সময় ঢাকার ইবনে সিনা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ১ কন্যাসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার ভাদুরা গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত উপজেলা শিক্ষা অফিসার আলী আকবরের সুযোগ্য সন্তান শেখ কামরুল হাসান ১৯৯২ সালের ২০ নভেম্বর কচুয়া বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজে প্রভাষক হিসেবে যোগদান করেন। তিনি বাকশিস কচুয়া উপজেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন।
প্রয়াত শেখ কামরুল হাসানের প্রথম নামাজে জায়নাযা রাত ৭ টা ৪৫ মিনিটে তার কর্মস্থল কচুয়া বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজ মাঠে এবং দ্বিতীয় সামাজে জায়নাযা রাত ৯ টায় তাঁর বাসস্থান চাঁদপুর শহরের ট্রাক রোডস্থ জামে মসজিদ প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হয়েছে। জায়নাজা শেষে মরহুমের লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার বাড়ি ভাদুরা গ্রামের শেখ বাড়িতে মরহুমের লাশ দাফন করা হয়। শেখ কামরুল হাসানের মৃত্যুতে বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজসহ মরহুমর পরিবারে শোকের ছায়া নেমে আসে।

শেখ কামরুল হাসানের মৃত্যুতে কলেজ গর্ভনিং বডির সভাপতি ড. মুনতাসীর মামুন, কলেজের অধ্যক্ষ শাহ মোঃ জালাল উদ্দিন চৌধুরী কলেজের শিক্ষক, অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেছেন।
তাছাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ শাহজাহান শিশির, পৌর মেয়র নাজমুল আলম স্বপন, কচুয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি ও কচুয়া বার্তার সম্পাদক মোঃ আলমগীর তালুকদার তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।
প্রসঙ্গতঃ শেখ কামরুল হাসান ১৩ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার সকালে কর্মস্থলে আসার পথে কচুয়া-হাজীগঞ্জ সড়কের কালচোঁ নামক স্থানে সিএনজি দুর্ঘটনায় পতিত হয়ে ইবনে সিনা হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

এসএসসিতে পাসের হার ৭৭.৭৭%

Share চলতি বছরের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। এতে ১০ শিক্ষা বোর্ডে গড়ে পাসের হার ৭৭ দশমিক ৭৭ শতাংশ। আর জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ১০ হাজার ৬২৯ জন। রবিবার ...

লোটাস কামালের দুর্গে বিএনপির দুই ভূঁইয়ার দ্বন্দ্ব!

Share নাঙ্গলকোট উপজেলার একটি পৌরসভা ও ১৬টি ইউনিয়ন, নবগঠিত লালমাই উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন ও কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন নিয়ে কুমিল্লা-১০ আসন। আয়তন ও জনসংখ্যার দিক থেকে দেশের অন্যতম বড় আসন এটি। আসনের প্রতিটি ...